Home » Featured » সৌদি আরবের জেলে ব্রিটিশ বন্দী ৩৫০ বেত্রাঘাতের অপেক্ষায়- পরিবার সরকারের হস্তক্ষেপ চাইছে (ভিডিও)

সৌদি আরবের জেলে ব্রিটিশ বন্দী ৩৫০ বেত্রাঘাতের অপেক্ষায়- পরিবার সরকারের হস্তক্ষেপ চাইছে (ভিডিও)

196

কার্ল অ্যান্ড্রো পেশায় একজন ওয়েল এক্সিকিউটিভ।  ব্রিটেনের নাগরিক। গত ২৫ বছর ধরে থাকেন সৌদি আরব চাকুরী সূত্রে। বছর দেড়েক আগে তার কারের বুটের মধ্যে জেদ্দাতে হোম মেইড ওয়াইন এর বোতল খুজে পায় সৌদি পুলিশ। বাস মদ পাওয়ার দরুন পুলিশ, তারপর আদালত। ইসলামিক শরীয়া আইন ও শরীয়া কোর্টে কার্লের হয় জেল। গত ১২ মাস ধরে তিনি জেল খাটছেন।

jeddah-কার্ল অ্যান্ড্রো যখন জেলে যান তখন বয়স ছিলো ৭৪। বর্তমানে আরো বেশী। তার জেলের মেয়াদ আরো দুই মাস বেড়েছে। এখন তার শাস্তি হবে শরীয়া আইন অনুযায়ী বেত্রাঘাত। তাও ৩৫০ বেত্রাঘাত।

ব্রিটেনে অবস্থানরত তার পরিবার বলছে, তিনি অন্ধকার এক কুঠুরিতে আছেন, যেখানে সূর্যের আলো ঢুকার রাস্তা নেই। তার উপর তার আছে অ্যাজমা। বর্তমানে ক্যান্সারের রুগেও তিনি ভুগছেন বলে তার ছেলে স্কাই নিউজকে জানিয়েছেন।

 

family-pic-এমতাবস্থায় পরিবার বলছে, তার তিন সন্তান হিউজ, ক্রিস্টেন এবং সাইমন আবেদন করেছেন,  বেত্রাঘাত নেয়ার মতো তার শরীরে দখল সইবেনা। তিনি মারা যেতে পারেন। সেজন্যে তার পরিবার দাবী করছে, ব্রিটিশ সরকার যেন হস্তক্ষেপ করেন তার মুক্তির ব্যাপারে।

ফরেন অফিস সূত্রে জানা গেছে, তারা এ বিষয় সৌদি আরবের গোচরীভূত করেছেন।

উল্লেখ্য সৌদি আরবে মদ নিষিদ্ধ ।

ট্যাবলয়েড সান পত্রিকার রিপোর্ট অনুযায়ী জেদ্দার ব্রিমান জেল টর্চারের জন্য বিখ্যাত, যেখানে কার্ল রয়েছেন।

(nari/news/salim ahmed/ october/2015/skynews)

Please follow and like us:

Add a Comment

Your email address will not be published.

Follow by Email
YouTube
Pinterest
LinkedIn
Share
Instagram
error: Content is protected !!