Home » Featured » নিকোলা স্টারজেনের `কাইন্ড অব সারপ্রাইজিং` ভিজিট- দ্বিতীয় গণভোটের অপশন

নিকোলা স্টারজেনের `কাইন্ড অব সারপ্রাইজিং` ভিজিট- দ্বিতীয় গণভোটের অপশন

সৈয়দ শাহ সেলিম আহমেদ-

ব্রেক্সিট আলোচনা যখন শুরু হলো স্কটিশ ফার্স্ট মিনিস্টার নিকোলা স্টারজেন হুট করে জার্মানি ভিজিট করেন দুদিন আগে। সেখানে তিনি (মঙ্গলবার) জার্মান ডেপুটি ফরেন মিনিস্টারের সাথে বৈঠক করেন এবং একে অন্যের সম্পর্ক ঝালাই করে নেন। রয়টার্সের খবরে এমন সত্যতাই বলা হয়েছে।

 

নিকোলা স্ট্রারজেন জার্মান টিভির সাথেও কথা বলেছেন। সেখানে জার্মান টিভির প্রেজেন্টারের প্রশ্নের জবাবে বলেছেন, তার এই ভিজিট “কাইন্ড অব সারপ্রাইজিং”। সাথে সাথে তিনি বলেছেন, স্কটল্যান্ডের ইউরোপীয় ইউনিয়নে থাকার ব্যাপারে স্কটিশ ইন্টারেস্ট তিনি প্রটেক্ট  করবেন, যদিও ব্রিটেন ইউরোপীয় ইউনিয়ন থেকে বেরিয়ে যাবে।

Nicola Sturgeon will travel to Brussels on Wednesday

গণভোটের সময়ে স্কটিশ ৬২ পার্সেন্ট জনগন ইউরোপীয় ইউনিয়নে থাকার পক্ষে রায় দিয়েছেন। স্টারজেন সেটাই জোর দিয়ে বলছেন তিনি স্কটিশ জনগনের মতামতকে সুরক্ষা করবেন। তিনি বলেছেন, সেজন্যে স্পেশাল ওয়ে এবং স্পেশাল রিলেশনশীপ বিল্ড করা হবে। তবে এই স্পেশাল রিলেশনশিপ এর ব্যাখ্যা তিনি দেননি। আর্টিকল ৫০ ট্রিগারের সময় সেটা যে সামনে আসবে বলাই বাহুল্য।

 

তার মানে কী দ্বিতীয় রেফারেন্ডামের প্রশ্নের জবাবে তিনি ডিপ্লোম্যাটিক কায়দায় বলেছে, এটা ভাবা হচ্ছেনা, তবে দ্বিতীয় গণভোট একটা অপশন– যা চাইতে পারেন।

European Parliament president Martin Shulz

নিকোলা স্টারজেন পরিষ্কার ম্যাসেজ দিয়েছেন, ব্রিটেন বেরিয়ে গেলে এবং তারা  ব্রিটেনের সাথে থাকেন, তথাপিও ইউরোপীয়  ইউনিয়নের  সাথে স্কটিশদের মতামত তিনি সুরক্ষা করবেন- এটাই তার দায়িত্ব, যতোটুকু তার দ্বারা সম্ভব তিনি তাই করবেন।

আগামী দিনগুলোতে ওয়েস্ট মিনিস্টারের রাজনীতিতে স্কটল্যান্ডের ইউরোপীয় ইউনিয়নের সাথে থাকা নিয়ে ব্রেক্সিটের আর্টিকল ৫০ ট্রিগারের সময়ে ২৮টি দেশের সাথে নতুন আরো এক টার্মস এন্ড কন্ডিশন ঠিক করতে নেগোসিয়েশনের তালিকা যে দীর্ঘায়িত হলো- নাটকীয়তায় যে ভরে উঠবে- সেটাই সহজেই অনুমেয়।

১১ আগস্ট ২০১৬